মরিতা মনি(টোকিও) ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লাখ শহীদ ও দুই লাখ ৬৯ হাজারব মা-বোনের সম্ভ্রমহানির মধ্য দিয়ে অর্জিত আমাদের এই মহান বিজয় দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করেছে জাপানস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস। ফি বছরের ন্যায় এবারও অত্যন্ত জাঁকজমকপূর্ণ আয়োজনে দূতাবাস কর্তৃক অনুষ্ঠান শুরু হয় সকাল ৯টা । অনুষ্ঠান শুরুতেই জাপানে নিযুক্ত মান্যবর চার্জ দা অ্যাফেয়ার্স শাহিদা বেগম এর জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে জাতীয় সংগীত পরিবেশন করা হয় ।পতাকা উত্তলন শেষে পবিত্র কোরআন থেকে তেলোয়াত সহ আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামের মহান নায়ক বাংলাদেশের স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামে আত্মত্যাগী বাংলার সূর্য সন্তানদের আত্বার মাগফিরাত কামনা করে দোয়া ও মোনাজাত করা হয় । জাপানে বসবাসরত বিভিন্ন বাংলাদেশী কমিউনি রাজনেতিক ব্যক্তি বর্গ বিশিস্ট ব্যবসায়ী সহ সমাজের সর্বস্তরের জনগণ উপস্থিত ছিলেন । অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্যায়ে বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনে আমন্ত্রিত অতিথিদের মাঝে মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি,মাননীয় প্রধানমন্ত্রী,মাননীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রী , মাননীয় পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী প্রদত্ত বানী পাঠ করেন দূতাবাসের কর্মকর্তাগন যথাক্রমে জিয়াউল আবেদীন ,এম ডি জাকির হোসেন ,আরিফুল হক,শিপলু জামান ,মান্যবর চার্জ দা অ্যাফেয়ার্স শাহিদা আক্তার । মান্যবর চার্জ দা অ্যাফেয়ার্স শাহিদা আক্তার মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামের মহান নায়ক বাংলাদেশের স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন পুরনে স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে তরুন প্রজন্মকে স্বাধীনতার চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান। আমন্ত্রীত অতিথির মধ্যে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ জাপান শাখার সম্মানিত সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আসলাম হীরা ,শাহরিয়ার এম শামস শাম্মী নাজমুল হোসেন রতন ,মাজহারুল ইসলাম, লাভলী মোস্তফা ,শাম্মী বাবলী ও হাসান । অনুষ্ঠান শেষ পর্বে আমন্ত্রিত অতিথিদের কে আপ্যায়ীত করা হয় ।

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here